শনিবার, ১৫ Jun ২০১৯, ০৮:২৪ পূর্বাহ্ন

Translator
Translate & English
সংবাদ শিরোনাম
স্মরনে নবাবসিরাজউদ্দৌলা। হলো না সব বাংলার ঐতিহ্যবাহী নবাবি ব্যাপার স্যাপার। প্রধানমন্ত্রী:-সংসদে সত্যিকারের শক্তিশালী বিরোধী দল চেয়েছিলাম ৭ নম্বর বিপদ সংকেত মোংলা পায়রা বন্দরসহ ৯ জেলায় । নগরীতে আমিনুল হকের মাগফিরাত কামনায় দোয়া মাহফিল শ্রমেরমর্যাদা, ন্যায্যমজুরি, ট্রেডইউনিয়নঅধিকারওজীবনেরনিরাপত্তারআন্দোলনশক্তিশালীকরারদাবিনিয়েআশুলিয়ায়মেদিবসপালন । সোনারগাঁয়ে ছাত্রলীগ নেতাকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে আহত করেছে স্থানীয়  প্রভাবশালী  মাদকব্যবসায়ী । জেলা খুলনার দাকোপে ব্রোথেলের নারীজাগরনী সংঘের সভানেত্রী রাজিয়া বেগম হাতিয়ে নিয়েছে লক্ষলক্ষ টাকা। ঘু‌র্ণিঝড় ফ‌নি আঘাত আনতে পা‌রে ৪ মে, য‌দি বাংলা‌দে‌শে আঘাত হা‌নে ত‌বে্রে আক‌টি সিডর হ‌তে পা‌রে বাংলা‌দে‌শে।  গাজীপুরে ফ্রেন্ডস ট্যুরিজম আয়োজন করলো সাধারণ জ্ঞান প্রতিযোগিতার ।
আদালত জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠান।

আদালত জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠান।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কারাগারে থেকে অংশ নিতে হয়েছে ২০দলীয় জোট ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের ১৬ প্রার্থীকে। নাশকতার মামলায় তাদের মধ্যে কেউ কেউ আত্মসমর্পন করার পর আদালত জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠান। আবার কাউকে কাউকে ভোটের আগে বিভিন্ন সময়ে গ্রেপ্তার করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। কারাগারে থাকা ওই ১৬ প্রার্থীর কেউই নির্বাচনে জিততে পারেননি। অনেকেরই জামানত বাজেয়াপ্ত হয়েছে।

প্রাপ্ত বেসরকারি ফল অনুযায়ী, যশোর-২ আসনে আওয়ামী লীগের মো. নাসির উদ্দিন ৩ লাখ ২৫ হাজার ৭৯৩ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। বিএনপির ধানের শীষ প্রতীকের প্রার্থী জামায়াত নেতা আবু সাঈদ মোহাম্মদ শাহাদৎ হোসেন কারাগারে থেকে পেয়েছেন ১৩ হাজার ৯৪০ ভোট। ঠাকুরগাঁও-২ আসনে আওয়ামী লীগের আলহাজ্ব মো. দবিরুল ইসলাম ২ লাখ ২৩ হাজার ৬১৬ ভোট পেয়ে জিতেছেন। জামায়াত নেতা কারাবন্দি মাওলানা আব্দুল হাকিম পেয়েছেন ১৫ হাজার ৬৩৮ ভোট।  মাগুরা-১ আসনে আওয়ামী লীগের মো. সাইফুজ্জামান পেয়েছেন ২ লাখ ৭৪১৩০ ভোট। বিএনপির মনোয়ার হোসেন পেয়েছেন ১৬ হাজার ৪৬৭ ভোট। খুলনা-৬ আসনে আওয়ামী লীগের মো. আক্তারুজ্জামানের  প্রাপ্ত ২ লাখ ৮৫ হাজার ১১২ ভোটের বিপরীতে ধানের শীষের জামায়াত নেতা কারাবন্দি আবুল কালাম আজাদ পেয়েছেন ১৯ হাজার ১০৫ ভোট। সাতক্ষীরা-২ আসনে আওয়ামী লীগের মীর মোস্তাক আহমেদ রবির ১ লাখ ১১ হাজার ৭৯৪ ভোটের বিপরীতে বিএনপির কারাবন্দি মুহাম্মদ আবদুল খালেক পেয়েছেন ২০ হাজার ৬৯৩ ভোট। সাতক্ষীরা-৪ আসনে জামায়াত নেতা কারাবন্দি গাজী নজরুল ইসলাম পেয়েছেন ৩ হাজার ৪৮৬ ভোট, টাঙ্গাইল-২ আসনে বিএনপির কারাবন্দি সুলতান সালাহ উদ্দিন টুক পেয়েছেন ১১ হাজার ১৪৯ ভোট।

কারাবন্দি অন্য প্রার্থীদের মধ্যে বিএনপির এ কে এম ফজলুল হক মিলন (গাজীপুর-৫) ২৭ হাজার ৯৭৬ ভোট, বিএনপির খায়রুল কবির খোকন (নরসিংদী-১) ২৪ হাজার ৭৮৭ ভোট, বিএনপির এস এম জিলানী (গোপালগঞ্জ-৩) ১২৩ ভোট, বিএনপির মনিরুল হক চৌধুরী (কুমিল্লা-১০) ১২ হাজার ১৮৩ ভোট, বিএনপির ডা. শাহাদাত চৌধুরী (চট্টগ্রাম-৯) ১৭ হাজার ৬৪২ ভোট, জামায়াত নেতা  আ ন ম শামশুল ইসলাম (চট্টগাম-১৫) ৫২ হাজার ৫৫৬ ভোট, বিএনপির রেজা আহমেদ বাচ্চু (কুষ্টিয়া-১) ৩ হাজার ৪২০ ভোট, জামায়াত নেতা মতিউর রহমান (ঝিনাইদহ-৩) ৩২ হাজার ২৪৯ ভোট,  হামিদুর রহমান আযাদ (কক্সবাজার-২) ১৭ হাজার ৬০০ ভোট পেয়েছেন। হামিদুর রহমান আযাদ ধানের শীষ প্রতীক পাননি।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




Translate & English
Design & Developed BY ThemesBazar.Com