শুক্রবার, ১৭ অগাস্ট ২০১৮, ০৪:২৬ পূর্বাহ্ন

খুলনা বিআরটিসি ড্রাইভিং সেন্টারের বদৌলতে কর্মসংস্থান হচ্ছে শত শত বেকার নাগরিকের

খুলনা বিআরটিসি ড্রাইভিং সেন্টারের বদৌলতে কর্মসংস্থান হচ্ছে শত শত বেকার নাগরিকের

এম.এ কাউসার তুষার॥ বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্পোরেশন রাষ্ট্রীয় সেবা প্রদানকৃত সংস্থার মধ্যে অন্যতম, তেমনি দক্ষিণ বঙ্গের খুলনা বিআরটিসি বাস ডিপো অন্যতম, যা হতে দূর পাল্লা ও স্বল্পপাল্লার বাস যাত্রীদের নিয়ে বিভিন্ন গন্তব্যে পৌছায়, অনেক সময় অভিজ্ঞ ড্রাইভার এর স্বল্পতার জন্য গাড়ী দুর্ঘটনায় পতিত হয়, সূত্র তথ্য মতে জানান- এসব দূর্ঘটনা রোধে অভিজ্ঞ ড্রাইভার গড়ার লক্ষ্যে বিআরটিসি কর্তৃপক্ষ সেভ প্রজেক্ট হাতে নেয়। বেকার জনশক্তিকে দক্ষ জনশক্তিতে রূপান্তরিত করতে ১৯টি ডিপোতে ৫ বছর ব্যাপী ৩৬ হাজার দক্ষ ড্রাইভার তৈরীর লক্ষ্যে এ কর্মসূচী হাতে নেওয়া হয়, যার ফলশ্র“তিতে খুলনা ডিপো ব্যবস্থাপক সেভ প্রজেক্ট কার্যক্রম শুরু করেন ০৩-০৩-২০১৮ইং হতে যা ৪ মাস ব্যাপী চলবে খুলনা ডিপো এলাকায়, যশোহর উপশহর, ঝিনাইদহ লাউদিয়া ট্রেনিং সেন্টারের মাধ্যমে ২১০ জন শিক্ষার্থী নিয়ে যাদের প্রতিদিন ১০০ টাকা ভাতা, কলম, ডায়েরী, টি-শার্ট দেওয়ার ব্যবস্থা ও লাইসেন্স ফ্রি করে দেওয়া হবে বলে জানান শাখা ব্যবস্থাপক- মো: ওমর ফারুক মেহেদী, তিনি আরও জানান- সম্প্রতি অচল গাড়ী তিনটি সচল করা হয়েছে, একটি গাড়ী গোপালগঞ্জ বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয় স্টাফ বাস হিসেবে দেওয়া হয়েছে, যার নামকরণ শেখ রাসেল এর নামে করা হয়েছে ও ৫টি স্টাফ বাস সূর্যমুখী, রজনীগন্ধা, কনকচাপা, হাঁসনাহেনা, দোলনচাঁপা নামে সড়কে চলছে, এছাড়াও ঝিনাইদহ ট্রেনিং সেন্টার দীর্ঘদিন যাবৎ কতিপয় দুষ্ট লোকের দখলে ছিল, যা বর্তমানে দখল নিয়ে পুরো দমে চালু করা হয়েছে, সব নতুন আসবাবপত্র ও ১০০ জন প্রশিক্ষণার্থী নিয়ে ট্রেনিং সেন্টারের কার্যক্রম নতুন আঙ্গিকে শুরু করা হয়েছে, অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের মতো কর্মচারীরা চাকুরী শেষে যে এলপিআর পায় তা আমাদের নেই, যাতে আমাদের লোকজন এলপিআর পায় – সে ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ভেবে দেখবেন মনে করেন বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্পোরেশন এর কর্মকর্তা কর্মচারীগণ, তা বাস্তবায়ন হলে শ্রমিকদের কাজের গতি বৃদ্ধি পাবে, ডিপো সিবিএ রুম অত্যাধুনিক করা হয়েছে, তাদের বিনোদনের জন্য টিভি, চেয়ার, টেবিল নতুন দেওয়া হয়েছে ও অডিও-ভিডিও সিস্টেম করা হয়েছে, সর্বোপরি আমরা চেষ্টা করছি বিআরটিসির সম্মানিত যাত্রীগণের জন্য আরামদায়ক ভ্রমনের ব্যবস্থা করে দিতে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




https://www.facebook.com/
Design & Developed BY ThemesBazar.Com